Bangla24.Net

বুধবার, ১২ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ২৯শে জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

টানা বৃষ্টি-পাহাড়ি ঢল

আবারও ডুবলো তাহিরপুরের রাস্তাঘাট

গেল ৩দিন টানা বৃষ্টি আর উজানের পাহাড়ি ঢলের পানিতে সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলার যাদুকাটা, বোলাই ও পাঠলাই নদীর পানি বৃদ্ধি পেয়েছে।

জানা গেছে, উপজেলার ৭টি ইউনিয়নের বিভিন্ন নদ-নদীর পানি বাড়ায় নিম্নাঞ্চলের মানুষ পানিবন্দি আছে। গ্রামীণ সড়ক আবারও তলিয়ে গেছে। তাই বাধ্য হয়ে নৌকা দিয়ে জেলা ও উপজেলায় জরুরি কাজে,চিকিৎসার জন্য হাসপাতালে ও নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্য কিনতে হাট বাজারে যাচ্ছেন।

পানিতে ডুবে আছে তাহিরপুর-বাদাঘাট সড়ক ও তাহিরপুর-সুনামগঞ্জ সড়কের কৈয়ারকান্দা (১০০ মিটার) সড়ক। এতে করে এই দুটি সড়কে সরাসরি যান চলাচল বন্ধ রয়েছে। তবে পানির চাপ কমে গেলে তাহিরপুর-সুনামগঞ্জ সড়কের কৈয়ারকান্দা(১শত মিটার)সড়ক থেকে পানি নেমে যাবে।

জাহান তালুকদার জানান, পানি বৃদ্ধি পাওয়া নিম্নাঞ্চলের পরিবার গুলো ও তাদের গবাদি পশু নিয়ে দুশ্চিন্তায় পড়েছে। গত দুদিন বৃষ্টির কারণে পানি কিছুটা বৃদ্ধি পেয়েছে। সীমান্ত এলাকা ও হাওর পাড়ের সড়ক পানিতে ডুবে আছে।

টাংগুয়ার হাওর পাড়ের কৃষক লোকমান মিয়া জানান, বছরের বর্ষার ৬ মাস পানিই নিত্যসঙ্গী। হাওর পাড় থেকে উপজেলা সদরের সাথে সড়ক পথের কোনো ব্যবস্থা নেই তবে শুষ্ক মৌসুমে কোন রকমে চলাচল করা যায়। প্রতিবছরে বন্যায় আমাদের ঘরবাড়ি, রাস্তাঘাট ডোবে যায়। তবে বন্যার হাত থেকে রক্ষা পেতে হলে পরিকল্পিত ভাবে নদীগুলো খনন করা প্রয়োজন।

তাহিরপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সুপ্রভাত চাকমা জানান, গত দুদিন বৃষ্টি ও পাহাড়ি ঢলে পানি কিছুটা বৃদ্ধি পেলেও বন্যার আশংকা নেই।

শেয়ার